আপনারা আমাদের সহায়তা করুন- সম্পাদক ও জ্যেষ্ঠ সাংবাদিকদের ওবায়দুল কাদের

জাতীয় তথ্য-প্রযুক্তি প্রচ্ছদ মুক্তমত রাজনীতি হ্যালোআড্ডা

নিজস্ব প্রতিবেদক : সংবাদপত্রের সম্পাদক ও জ্যেষ্ঠ সাংবাদিকদের সাদাকে সাদা এবং কালোকে কালো বলার আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেছেন, ‘আমাদের মূল অ্যাজেন্ডা এ দেশের মানুষের জানমালের নিরাপত্তা দেওয়া। আমরা সেদিকে এগিয়ে যাচ্ছি। আপনারা আমাদের সহায়তা করুন।’

ঢাকা ক্লাবের স্যামসন এইচ চৌধুরী হলে বিশিষ্ট গণমাধ্যম ব্যক্তিত্বদের সঙ্গে গতকাল বুধবার এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় এ সভার আয়োজন করে।

বাসস জানায়, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘পঁচাত্তরের পর দেশে রাজনৈতিক দেয়াল তৈরি করা হয়েছিল। ইনডেমনিটি জারি করে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বন্ধ করা হয়েছিল। মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ভূলুণ্ঠিত করা হয়েছিল।’ তিনি বলেন, ‘৭ মার্চের ভাষণ নিষিদ্ধ করা হয়। আমরা জাতীয় দিবসে যেতে পারিনি। খালেদা জিয়ার শাসনামলে বাংলা ভাই সৃষ্টি করা হয়। সারা দেশে আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের হত্যা করা হয়।’

বিএনপির উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘যাদের ঘরে গণতন্ত্র নেই, তারা দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করবে কীভাবে।’ তিনি আরও বলেন, ‘বিএনপি কেন তাদের গঠনতন্ত্রের ৭ ধারা তুলে দিয়েছিল। ৭ ধারা অনুযায়ী কোনো দুর্নীতিবাজ, সাজাপ্রাপ্ত ব্যক্তি দলের নেতৃত্বে থাকতে পারবে না। বিএনপি সেটি তুলে দিয়ে দুর্নীতিবাজ সাজাপ্রাপ্তদের দলে রেখেছে।’

আমাদের ভুল আছে, তারপরও আমরা দেশের জন্য কাজ করছি—উল্লেখ করে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘রাজনীতিতে বিরোধিতা থাকবে; কিন্তু আমরা হত্যার রাজনীতি করি না। বিএনপির সঙ্গে পাল্টা কর্মসূচি দিচ্ছি না। দলের সম্মেলন সামনে রেখে কাজ করছি। আওয়ামী লীগ গণতন্ত্রে বিশ্বাসী, আওয়ামী লীগ গণতন্ত্র চর্চা করে।’

এ সময় আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য মোজাফফর হোসেন, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আবদুর রাজ্জাক, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান, শাজাহান খান, কামরুল ইসলাম, হাছান মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, এস এম কামাল, উপপ্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

আরও উপস্থিত ছিলেন প্রেস কাউন্সিলের চেয়ারম্যান বিচারপতি নিজামুল হক, বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, দৈনিক অবজারভার সম্পাদক ইকবাল সোবহান চৌধুরী, প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমান, কালবেলা সম্পাদক আবেদ খান, ডেইলি স্টার সম্পাদক মাহ্‌ফুজ আনাম, বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজাম, মানবজমিন সম্পাদক মতিউর রহমান চৌধুরী, নিউ এজ সম্পাদক নুরুল কবির, ভোরের কাগজ সম্পাদক শ্যামল দত্ত, আমাদের নতুন সময় সম্পাদক নাঈমুল ইসলাম খান, আজকের পত্রিকা সম্পাদক গোলাম রহমান, যুগান্তর সম্পাদক সাইফুল আলম, বাংলাদেশ পোস্ট সম্পাদক শরীফ শাহাবুদ্দিন, একাত্তর টেলিভিশনের সিইও মোজাম্মেল বাবু, চ্যানেল আই পরিচালক ও বার্তা প্রধান শাইখ সিরাজ, জাতীয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মুহাম্মদ শফিকুর রহমান, প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সভাপতি ওমর ফারুক, সাবেক সভাপতি মনজুরুল আহসান বুলবুল, জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি ফরিদা ইয়াসমিন, বিএফইউজের সাধারণ সম্পাদক দীপ আজাদ, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) সভাপতি সোহেল হায়দার চৌধুরী, সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাস্টের মহাপরিচালক সুভাষ চন্দ প্রমুখ।

আরো পড়ুন : শুটিংয়ের মাঝপথে চলে গেছেন অভিনেতা শাহীনুর সরোয়ার

Share The News

Leave a Reply

Your email address will not be published.