কুমিল্লায় বিয়ের প্রলোভনে ডেকে নিয়ে তরুণীকে রাতভর সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, আটক ৫

নারী নারী ধর্ষণ নারী নির্যাতন পুরুষ প্রচ্ছদ শিশু অধিকার শিশু ধর্ষণ

কুমিল্লা প্রতিনিধি: কুমিল্লায় এক তরুণীকে বিয়ের প্রলোভনে ঘর থেকে ডেকে নেয় প্রেমিক। এরপর একটি উন্মুক্ত মাঠে ওই প্রেমিক ও তার বন্ধুরা মিলে তরুণীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ করে।

এ ঘটনায় শুক্রবার (২ নভেম্বর) দুপুরে জেলার বরুড়া থানায় অভিযোগ দেয় ভুক্তভোগী। পরে এদিন সন্ধ্যার মধ্যেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে প্রতারক প্রেমিকসহ ৫ জনকে আটক করেছে।

শুক্রবার রাত ১০টার দিকে এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বরুড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইকবাল বাহার মজুমদার জানান, গত বুধবার রাতে বরুড়া উপজেলার দক্ষিণ খোশবাস ইউনিয়নের হোসেনপুর গ্রামে ওই সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। শনিবার সকালে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নির্যাতিত তরুণীর ডাক্তারি পরীক্ষা হওয়ার কথা রয়েছে।

নির্যাতিত তরুণীর পরিবার ও পুলিশের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, বরুড়া উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নের এগারোগ্রামের বাসিন্দা ওই তরুণী কুমিল্লা নগরীর ইপিজেড সংলগ্ন ইয়াছিন মার্কেট এলাকায় হতদরিদ্র মায়ের সঙ্গে বসবাস করতেন। তার সঙ্গে একই উপজেলার দক্ষিণ খোশবাস ইউনিয়নের হোসেনপুর গ্রামের আবুল কালামের ছেলে মিনার হোসেনের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এক পর্যায়ে মিনার ওই তরুণীকে বিয়ের প্রলোভনে গত বুধবার (৩০ নভেম্বর) ঘর থেকে ডেকে নেয়। এরপর ওইদিন রাতে মিনারের বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে তরুণীকে হোসেনপুর গ্রামের উন্মুক্ত মাঠে নিয়ে যায়। সেখানে তার সঙ্গে ওই গ্রামের ইয়াছিন মিয়ার ছেলে নাসির হোসেন, আমিনুল ইসলামের ছেলে নোমান হোসেন, গফুর ভূঁইয়ার ছেলে সোহেল ভূঁইয়া, একই গ্রামের মোয়াজ্জেম হোসেনসহ অজ্ঞাতনামা আরো দুজন ওই তরুণীকে ধর্ষণ করে।

ভুক্তভোগীর পরিবার জানায়, পাশবিক নির্যাতনের একপর্যায়ে ওই তরুণী গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে সিএনজি অটোরিকশা যোগে কুমিল্লা নগরীর বাসায় পাঠিয়ে দেওয়া হয় পরদিন ভোরে।

ওই তরুণী সাংবাদিকদের জানান, তিনি ওই লম্পটদের কবল থেকে বাঁচতে অনেক চেষ্টা করেছেন। কিন্তু তারা তাকে পাশবিক ও শারীরিক নির্যাতন চালিয়েছে রাতভর। এরপর সিএনজি অটোরিকশায় তুলে দেওয়ার সময় হুমকি দিয়ে বলেছে- এ ঘটনা কাউকে বললে প্রাণে মেরে ফেলবে।

বরুড়া থানার ওসি ইকবাল বাহার মজুমদার জানান, শুক্রবার দুপুরে ওই ভুক্তভোগী মেয়েটি বরুড়া থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করে। পরে পুলিশ বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ৫ জনকে আটক করে। তাদেরকে মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে শনিবার কুমিল্লার আদালতে পাঠানো হবে।

আরো পড়ুন : কেন্দ্রীয়ভাবে না থাকলেও ৮ ডিসেম্বর থেকে টানা কর্মসূচি আওয়ামী লীগের

Share The News

Leave a Reply

Your email address will not be published.