টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে ভিজিএফ চাল চুরির অভিযোগে দুই ইউপি সদস্যকে গণপিটুনি

ক্রাইম নিউজ জনদুর্ভোগ দুর্নীতি পুরুষ প্রচ্ছদ রাজনীতি লাইফ স্টাইল

ঘাটাইল (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে ভিজিএফ চাল চুরির অভিযোগে দুই ইউপি সদস্যকে গণপিটুনি দিয়েছে স্থানীয় জনতা। শুক্রবার (৮ জুলাই) বিকালে উপজেলার দেওপাড়া ইউনিয়নে এ ঘটনাটি ঘটেছে। গণপিটুরি শিকার দুই ইউপি সদস্য হলেন, মো. রেজাউল করিম ও আব্দুস ছালাম।

স্থানীয়রা জানান, শুক্রবার দেওপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ ভবন থেকে ঈদ উপলক্ষে ইউনিয়নের হত দরিদ্রদের মাঝে ১০ কেজি করে ভিজিএফের চাল বিতরণ চলছিল।

কিন্তু ৭, ৮, ৯নং ওয়ার্ডের চাল বিতরণ শেষ না করেই ১২৫ বস্তা চাল তিন অটোরিকশায় বোঝাই করে কালো বাজারে বিক্রির উদ্দেশে নিয়ে যান ইউপি সদস্য রেজাউল করিম ও আব্দুস ছালাম।

এ সময় বিক্ষুব্ধ জনতা রাস্তা অবরোধ করে চালগুলো অটোরিকশা থেকে নামিয়ে রাস্তায় পাশে রেখে দেয়। তারা দুই ইউপি সদস্যকে ঘেরাও করে রাখে। পরে উত্তেজিত জনতা তাদের দুজনকে গণপিটুনি দেয়। স্থানীয় জনগণের তোপের মুখে ইউপি চেয়ারম্যান রুহুল আমিন হেপলু দৌড়ে পালিয়ে যায়। বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে ঘাটাইল থানার পুলিশ ও স্থানীয় প্রশাসনের লোকজন গিয়ে চালসহ জনতার হাতে আটক দুই ইউপি সদস্যকে উদ্ধার করে।

ইউপি সদস্য আব্দুস ছালাম বলেন, চাল চুরির কোনো ঘটনা ঘটেনি। ইউপি চেয়ারম্যান রহুল আমিন হেপলুর নির্দেশে চালের বস্তাগুলো সরিয়ে নিয়ে দেলুটিয়া থেকে বিতরণ করতে চেয়েছিলাম।

ইউপি চেয়ারম্যান রুহুল আমিন হেপলু বলেন, চাল চুরির ঘটনা সঠিক নয়। বিতরণের সুবিধার জন্য চালগুলো দেলুটিয়া গ্রামে নিয়ে যাচ্ছিল। একটি পক্ষ ভুল বুঝিয়ে জনতাকে উত্তেজিত করিয়ে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটিয়েছে।

ঘাটাইল থানার উপ-পরিদর্শক পলাশ আহম্মেদ বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। স্থানীয় উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা এনামুল হক বলেন, দেওপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের পাশের পাকা রাস্তার তিনটি স্থান থেকে ১২৫ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়। পরে চালগুলো উদ্ধার করে ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে সিলগালা করে রাখা হয়েছে।

আরো পড়ুন : আজ শনিবার চাঁদপুরের অর্ধশত গ্রামে ঈদুল আজহা উদযাপিত হবে

Share The News

Leave a Reply

Your email address will not be published.