প্রথম দিনেই রেকর্ড, চার লাখ কপি বিক্রি হয়েছে প্রিন্স হ্যারির বই

প্রচ্ছদ শিল্প-সাহিত্য

ব্রিটিশ রাজপুত্র প্রিন্স হ্যারির স্মৃতিকথা ‘স্পেয়ার’ ব্রিটেনে অল্প সময়ে বেশি বিক্রির রেকের্ড গড়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার বইটি বাজারে আসে। ছাপানো বই, ই-বুক ও অডিও ফরম্যাট মিলিয়ে চার লাখ কপি বিক্রি হয়েছে প্রথম দিনেই।
বইটির প্রকাশকের দাবি, ব্রিটেনে আর কোনো ননফিকশন বই প্রথম দিনে এত বিক্রি হয়নি।

বিশ্বের বৃহত্তম প্রকাশনা সংস্থা পেঙ্গুইন র‌্যানডম হাউজের লন্ডন শাখা ট্রান্সওয়ার্ল্ড পাবলিশার্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ল্যারি ফিনলে এক বিবৃতিতে বলেন, বইটি দারুণ চলবে এটা আমরা আগেই জানতাম। তবে এটি আমাদের সর্বোচ্চ প্রত্যাশাকেও ছাড়িয়ে গেছে। আমরা যতদূর জানি, ব্রিটেনে এর আগে শুধু আরেক হ্যারির (‘হ্যারি পটার’) বই-ই প্রথম দিনে এর চেয়ে বেশি বিক্রি হয়েছে।

হ্যারির এই স্মৃতিকথার স্প্যানিশ অনুবাদটি ভুল করে নির্ধারিত সময়ের আগেই প্রকাশিত হয়। অবশেষে মঙ্গলবার মূল বইটি বাজারে আসে। ব্রিটিশ রাজপরিবারের অজানা নানা বিষয় উঠে আসায় আগ্রহী পাঠকরা প্রথম দিনেই বইয়ের দোকানে ভিড় করেন। বিশ্বব্যাপী বইটি ১৬টি ভাষায় প্রকাশ পেয়েছে।

স্থানীয় সময় বেলা ১২টায় বই বিক্রি শুরু হওয়ার আগেই অনেক দোকানের সামনে অপেক্ষমাণ পাঠকদের লাইন দেখা যায়।

এই বইতে প্রিন্স হ্যারি তার বাবা রাজা চার্লস, সৎ মা ক্যামিলা ও বড় ভাই প্রিন্স উইলিয়ামের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ তুলেছেন। যা বিশ্বের সব প্রান্তের পাঠকদের আকৃষ্ট করেছে।

২০২০ সালের শুরুর দিকে ব্রিটিশ রাজপ্রাসাদ ত্যাগ করেছিলেন প্রিন্স হ্যারি ও মেগান। তাদের প্রাসাদ ছাড়ার সিদ্ধান্ত সারা বিশ্বকে নাড়া দেয়। রাজপরিবার ছেড়ে তারা প্রথমে কানাডায় যান। তারপর লস অ্যাঞ্জেলেসে যান। তাদের ঘরে দুই সন্তান রয়েছে।

সূত্র : ডয়চে ভেলে।

আরো পড়ুন : জেনে নিন বিশ্ব ইজতেমা উপলক্ষ্যে গাড়ি চলাচলে নির্দেশনা সমুহ

Share The News

Leave a Reply

Your email address will not be published.