প্রয়োজনে মরব, জেলে যাব তবুও দেশ ছেড়ে পালাব না।

প্রচ্ছদ মুক্তমত রাজনীতি

বিশেষ প্রতিনিধি : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি যেভাবে আন্দোলনের নামে লাফালাফি ও বাড়াবাড়ি করছে, তাতে তাদের আন্দোলনের পতনধ্বনি শোনা যাচ্ছে।

ওবায়দুল কাদের আজ শুক্রবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন অব বাংলাদেশ মিলনায়তনে আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক উপকমিটি আয়োজিত ‘উদীয়মান ভবিষ্যতের জন্য চতুর্থ শিল্পবিপ্লব’ আন্তর্জাতিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

দেশ ছেড়ে পালানোর রাজনীতি তো বিএনপির, আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা পালানোর রাজনীতি করে না উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমাদের জন্ম এ দেশে, প্রয়োজনে মরব, জেলে যাব তবুও দেশ ছেড়ে পালাব না।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, মুচলেকা দিয়ে রাজনীতি করবে না বলে লন্ডনে পালিয়ে তো গেছে বিএনপির নেতা, আওয়ামী লীগের পালানোর ইতিহাস নেই।

বর্তমান সরকার দেশেকে ডিজিটাল বাংলাদেশে রূপান্তর করেছে, আগামীতে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তুলবে বলে অঙ্গীকার করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

সাধারণ সম্পাদক বলেন, খালেদা জিয়াকে বিএনপি মুক্ত করেনি, বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর দণ্ড স্থগিত করে বাসায় রেখেছেন।

প্রতিহিংসার রাজনীতি শেখ হাসিনা করেন না, প্রতিহিংসার রাজনীতি করে বিএনপি—এমন দাবি করে ওবায়দুল কাদের আরও বলেন, যারা ১৫ ও ২১ শে আগস্ট এবং ৩ নভেম্বর ঘটিয়েছে—তাদের মুখে প্রতিহিংসার কথা মানায় না।

আজ ৫০তম পবিত্র সংবিধান দিবস, এ দিবসটি জাতীয়ভাবে মন্ত্রিসভা অনুমোদন দিয়েছে এবং এখন থেকে জাতীয়ভাবে দিবসটি পালন করা হবে বলে জানান তিনি। এ বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, আগামী জাতীয় নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হবে।

বৈশ্বিক সংকটের বিষয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, এখন আমাদের কথা কম বলে কাজ বেশি করতে হবে, আর এখন সবার এই বিপ্লবই করতে হবে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক উপকমিটির চেয়ারম্যান মো. হোসেন মুনসুরের অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। সম্মেলনে আরও বক্তব্য দেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক উপকমিটির সদস্যসচিব আবদুস সবুর।

আরো পড়ুন : আজ ৪ নভেম্বর; আজকের দিনে জন্ম-মৃত্যুসহ যত ঘটনা

Share The News

Leave a Reply

Your email address will not be published.