গাইবান্ধায় দাফন করা বৃদ্ধা নারী ফিরে আসার গুজব ছড়িয়েপড়া ব্যক্তির পরিচয় মিললো

নারী প্রচ্ছদ মনোকথা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি: গাইবান্ধায় ৯ মাস পূর্বে কবরে দাফন হওয়া বৃদ্ধা নারী বাড়ি ফিরে আসার গুজব ছড়িয়ে পরার ২ দিনপর অবশেষে তার প্রকৃত পরিচয় মিলেছে। সে কবরে দাফন হওয়া ৭৫ বছর বয়সী বাছিরন বেগম নন। ৯২ বছর বয়সী ওই নারীর প্রকৃত নাম সেফালী সরদার। তিনি খুলনার দৌলতপুরের ঋষিপাড়ার বাসিন্দা। কিছুটা মানসিক ভারসম্যহীন ওই বৃদ্ধা পথ হারিয়ে গাইবান্ধায় আসেন। আজ শুক্রবার সেফালী সরদারের আশ্রিতা সুফিয়া বেগমের কাছে পুলিশ তাকে হস্তান্তর করে। গাইবান্ধা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তা বিষয় টি নিশ্চিত করেন।

উল্লেখ্য, গাইবান্ধা শহরের ডেভিড কোম্পানী পাড়ায় বাছিরন বেগম ৯মাস আগে বার্ধক্যজনিত কারনে মারা যান। আত্মীয় স্বজন ও এলাকাবাসি তাকে গাইবান্ধা পৌর গোস্থানে দাফনও করেন। হঠাৎ করেই ৩দিন আগে তিনি তার ছোট মেয়ে মাজেদা বেগমের বাড়ি সংলগ্ন গাইবান্ধা রেল স্টেশনে আসেন। তার চেহারা ও আচরণ মৃত বাছিরনের মতো জানতে পেরে গত বুধবার ১১ মে সকালে মাজেদা বেগম তাকে নিজ বাড়িত নিয়ে আসে। এরপরই ঘটনা জানাজানি হলে শহর জুড়ে ব্যাপক গুজব ছড়িয়ে পরে। কৌতুহল উতসুক জনতা ওই বৃদ্ধ নারীকে দেখতে মাজেদা বেগমের বাড়িতে ভীর জমায়। পরে পুলিশ তাকে উদ্ধর করে সদর থানায় নিয়ে আসে।

ফারুক হোসেন, গাইবান্ধা।

আরো পড়ুন : আসল না নকল জানতে ডিবির জ্যাকেটে কুইক রেসপন্স কোড

Share The News

Leave a Reply

Your email address will not be published.